| রাত ৮:২৫ - শুক্রবার - ১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ - ২রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ - ৯ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

ক্রিকেটার নাসির-তামিমার বিরুদ্ধে মামলা

বাংলাদেশের ক্রিকেটে ‘ব্যাড বয়’ খ্যাত নাসির হোসেন। গত ১৪ ফেব্রুয়ারি বিশ্ব ভালোবাসা দিবসে বিয়ে করেন তামিমা তাম্মি নামের এক নারীকে।

 

শনিবার (২০ ফেব্রুয়ারি) রাতে রাজধানীর গুলশানের লেকশোর হোটেলে আলোচিত নাসির-তামিমা জুটির বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হয়। কিন্তু বিয়ের পরেই বির্তক যেন তাদের পিছু ছাড়ছে না।

 

ডিভোর্স পেপার ছাড়াই অন্যের স্ত্রীকে বিয়ে করার অভিযোগে ক্রিকেটার নাসির হোসেন ও তামিমা সুলতানা তাম্মির বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

 

বুধবার ঢাকা মহানগর হাকিম মোহাম্মদ জসীমের আদালতে তামিমার সাবেক স্বামী রাকিব হাসান বাদী হয়ে এ মামলা করেন। মামলার বাদী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

 

বিয়ের সপ্তাহ না গড়াতেই তামিমার আগের স্বামী রাকিব হাসান থানায় জিডি করেন।

 

রাকিবের অভিযোগ, তামিমার সঙ্গে ১১ বছরের দাম্পত্য জীবন কাটিয়েছেন তিনি। তাদের ৮ বছরের কন্যাসন্তান রয়েছে। এটা জেনেও নাসির তার স্ত্রীকে বিয়ে করেছে। বিয়ের আগে তামিমা তাকে ডিভোর্স দেননি।

 

শুধু তাই নয়, নাসিরকে বিয়ে করার আগে আরও একজনের সঙ্গে সম্পর্ক জড়িয়েছিলেন তাম্মি। তার সঙ্গে সংসারও পেতেছিলেন।

 

কিন্তু ছয় মাস সংসার করার পর ফিরে আসেন। এরপর নতুন করে নাসিরের সঙ্গে সম্পর্কে জড়ান সৌদি এয়ারলাইন্সের এ বিমানবালা।

 

তারপরও সব জেনেশুনেই তামিমাকে বিয়ে করেছেন বলে জানিয়েছেন ক্রিকেটার নাসির।

 

ফেসবুকে তামিমার স্ট্যাটাস

 

নাসিরের স্ত্রী তামিমা তাম্মির এর আগেও বিয়ে হয়েছিল। সেই স্বামীকে ডিভোর্স না দিয়েই তিনি নাসিরকে বিয়ে করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। ফলে নাসির-তামিমার বিয়ে ইসলামি শরীয়ত মতে বৈধ হয়েছে কি-না সেটা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করে।

 

এদিকে এ বিতর্কের মধ্যই ফের ফেসবুক স্ট্যাটাস দিয়েছেন তামিমা তাম্মি। আর সেই স্ট্যাটাসেই বির্তকের জট খুলতে শুরু করেছে। যেখানে তাদের পক্ষে আর বিপক্ষে অনেক কমেন্টই দেখা যায়।

 

তিনি লেখেন, প্রথম যেদিন নাসিরের সঙ্গে আমার দেখা হয়-সেদিন নাসির আমাকে একটা গোলাপ দিয়েছিলো। আমি কিছুটা অবাক হয়েছিলাম।

 

ফ্রেন্ডশিপে গোলাপ?

 

তারপর রাতে তার কাছে ফোন করে জানতে চাইলাম আমাকে গোলাপ কেনো দিয়েছিলে? আমাকে বললো সে নাকি আমাকে ভালোবেসে দিয়েছে-সে আমার হতে চায়।

 

 

অবাক হয়ে গেলাম তখন-যে ছেলের ৩০-৩২ গার্লফ্রেন্ড থাকার পরেও আমাকে ভালোবেসে আমার হতে চায়; ৩০-৩২টা মেয়েকে ছেড়ে আমাকে আপন করতে চায়।

 

সেই আমি একটা স্বামীকে ছাড়তে পারবো না তার জন্যে? আমি তাকে খালি হাতে ফিরিয়ে দিতে পারিনি। আমি আমার ভালোবাসাকে নিজের করে নিয়েছি।

 

স্বার্থপরের মতো তাকে দূরে ঠেলে দিতে পারিনি।

 

– তামিমা সুলতানা তাম্মি (নাসিরের স্ত্রী)।

সর্বশেষ আপডেটঃ ১:০০ অপরাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২১