| সকাল ৯:৫৩ - মঙ্গলবার - ২৪শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ - ৯ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ - ৮ই রবিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি

বায়ু দূষণে ঢাকাকে ছাড়িয়ে ময়মনসিংহের যে এলাকা

লোক লোকান্তরঃ  বায়ু মান সূচকে (একিউআই) বুধবার সকাল ৯টার তথ্য অনুযায়ী, দেশে রাজধানী ঢাকা’র চেয়ে বায়ু দূষণের পরিমাণ সবচেয়ে বেশি ছিল সাভার ও ময়মনসিংহের ত্রিশালে।

 

এ দুই জায়গায় দূষণের পরিমাণ ছিল ১৭৩ পিএম২.৫। এই মাত্রার বায়ু দূষণকে (বায়ু দূষণের মাত্রা ১৫১ থেকে ২০০ পিএম২.৫) ‘আনহেলদি’ বা অস্বাস্থ্যকর হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

 

বায়ুর এই দূষণে যে কেউ অসুস্থ হয়ে পড়তে পারেন। বিশেষ করে যারা বায়ু দূষণজনিত রোগে ভুগছেন, তাদের শারীরিক অবস্থা গুরুতর হয়ে যেতে পারে। বায়ুর এই দূষণের কারণে শিশু, বৃদ্ধ বিশেষ করে যারা শ্বাস-প্রশ্বাসজনিত রোগে ভুগছেন তাদের বাড়ির বাইরে বের হওয়া উচিত নয়।

 

এছাড়া একই সময়ে বায়ু দূষণের পরিমাণ ছিল মানিকগঞ্জে ১৫৬ পিএম২.৫, শ্রীপুরে ১৪৩, ঢাকায় ১২১, কুমিল্লায় ৩৭ ও নারায়ণগঞ্জে ৩৭। আর সেই সময় ঢাকা মহানগরীর মধ্যে বায়ু দূষণের পরিমাণ ছিল বিটোপিতে ১৪৯ পিএম২.৫, ওহাব বারিধারায় ১২৩ পিএম২.৫, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ১১১, ঢাকার ইউএস অ্যাম্বাসিতে ১০৭, বে’স এডজওয়াটারে ৯৩ ও বিটোপি গ্রুপ-মিসামি গার্মেন্টস এলাকায় ৬৯।

 

করোনার সময় বাংলাদেশসহ সারা বিশ্বেই বায়ু দূষণ ব্যাপক হারে কমে গিয়েছিল। ধীরে ধীরে করোনার প্রভাব কমে আসায় কলকারখানাসহ জীবনযাত্রা স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে। আর এর এর সঙ্গে আবার বাড়তে শুরু করেছে বায়ু দূষণের পরিমাণ। করোনা মহামারির শুরুতে ঢাকার বায়ু মানের যে উন্নতি হয়েছিল, তা স্বাভাবিক সময়ে আশা করা যায় না।

 

একিউআই রিয়েলটাইম তথ্য আরও বলছে, বুধবার সকাল ১০টা ৬ মিনিটে বিশ্বের শহরগুলোর মধ্যে বায়ুর মান সবচেয়ে খারাপ ছিল পাকিস্তানের লাহোরে ৪৫৫ পিএম২.৫। তারপর ভারতের দিল্লিতে ৩৮০ পিএম২.৫, তারপর চীনের চেংদুতে ১৮১ পিএম২.৫। দূষণের দিক থেকে ঢাকা ছিল ১৮তম, যেখানে বায়ুর মান ছিল ১২১ পিএম২.৫।

 

তাদের সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী, বিশ্বের সবচেয়ে দূষিত শহরের মধ্যে ঢাকার অবস্থান ২১তম, যেখানে গড় দূষণ ৮৩ দশমিক ৩ পিএম২.৫। প্রথমে রয়েছে ভারতের গাজিয়াবাদ (গড় দূষণ ১১০.২ পিএম২.৫), দ্বিতীয় স্থানে চীনের হটান (গড় দূষণ ১১০.১ পিএম২.৫) এবং তৃতীয় স্থানে রয়েছে পাকিস্তানের গুজরানওয়ালা (গড় দূষণ ১০৫ দশমিক ৩ পিএম২.৫)।

 

বিশ্বের সবচেয়ে দূষিত দেশগুলোর মধ্যে প্রথমে রয়েছে বাংলাদেশ, যার গড় দূষণ ৮৩ দশমিক ৩০ পিএম২.৫। দীর্ঘদিন ধরে বাংলাদেশ বিশ্বের শীর্ষ দূষিত দেশের স্থান ধরে রেখেছে। বাংলাদেশে দূষণের পরিমাণের আশপাশে নেই অন্য দেশগুলো।

 

৬৫ দশমিক ৮১ পিএম২.৫ গড় দূষণ নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে পাকিস্তান। দূষিত দেশের মধ্যে তৃতীয় মঙ্গোলিয়া (৬২ পিএম২.৫), চতুর্থ আফগানিস্তান (৫৮ দশমিক ৮০ পিএম২.৫) এবং পঞ্চম ভারত (৫৮ দশমিক ০৮ পিএম২.৫)।

সর্বশেষ আপডেটঃ ১২:১২ অপরাহ্ণ | নভেম্বর ১১, ২০২০