|

সামাজিক মাধ্যমে আসক্তিতে যুদ্ধবিমান বিধ্বস্ত

লোক লোকান্তরঃ  সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অতিরিক্ত সময় কাটিয়ে বিমানের পাইলট নির্ঘুম থাকায় ২০১৩ সালে ভারতীয় বিমান বাহিনীর একটি যুদ্ধবিমান বিধ্বস্ত হয়েছিল।

 

দেশটির বিমান বাহিনীর প্রধান বি এস ধানোয়া শুক্রবার হতাশাজনক তথ্য প্রকাশ করেছেন। বিমান উড্ডয়নের আগে পাইলটের পর্যাপ্ত ঘুম হয়েছিল কিনা, তা শনাক্ত করতে একটি ব্যবস্থা খোঁজা হচ্ছে বলে তিনি জানালেন।

 

ধানোয়া বলেন, রাত জেগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সময় ব্যয় করায় পাইলটদের চোখে ঘুমের অভাব থেকে যায়।

 

বেঙ্গালুরুতে ৫৭তম ইন্ডিয়ান সোসাইটি অব মেডিসিন সম্মেলনে বক্তৃতা দেয়ার সময় তিনি এসব কথা বলেন।

 

ধানোয়া বলেন, ২০১৩ সালে উত্তরলাইয়ে দুর্ভাগ্যবশত একটি বিমান দুর্ঘটনা ঘটেছিল। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অতিরিক্ত আসক্ত থাকায় পাইলট বেশ কয়েকদিন রাতে ঠিকমতো ঘুমাননি বলেই এমনটা ঘটেছিল।

 

তিনি বলেন, এটা আমাদের নতুন প্রতিকূলতা। আমাদের সমাজিক পরিবর্তনের কারণেই এমনটি ঘটেছে। সেক্ষেত্রে উড্ডয়নের আগে পাইলটরা ঠিকমতো ঘুমিয়ে নিয়েছেন কিনা, তা শনাক্ত করার ব্যবস্থা বের করতে হবে।

 

ভারতীয় বিমানবাহিনীর প্রধান বলেন, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম আমাদের জন্য খুবই অপরিহার্য। ব্যক্তিগত যোগাযোগ বাড়াতে এরকম মাধ্যমের বিকল্প নেই।

 

ছবি: সংগৃহীত

সর্বশেষ আপডেটঃ ১:১৫ অপরাহ্ণ | সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৮