|

‘জ্বীনের বাদশা’ এর ডাকে জামালপুর থেকে গাইবান্ধা, মা-মেয়ে ধর্ষণের শিকার

লোক লোকান্তরঃ   গুপ্তধন দেয়ার কথা বলে ডেকে নিয়ে শুক্রবার রাতে জ্বীনের বাদশা পরিচয়ে মা ও তার মেয়েকে ধর্ষণ করেছে প্রতারকরা। গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার কাটাখালী নদীর তীরে তাদের ধর্ষণ করে প্রতারকরা। এ ঘটনায় শনিবার রাতে মামলা হয়েছে।

 

পুলিশ ও ভুক্তভোগীরা জানায়, ভুক্তভোগী মা-মেয়ের বাড়ী জামালপুর জেলা সদরে। তারা গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার জ্বীনের বাদশা পরিচয়ধারী প্রতারকের থপ্পড়ে পড়েন। প্রতারকরা তাদের মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করে জ্বীনের বাদশা পরিচয় দিয়ে কৌশলে ১ লাখ ২০ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়।

 

টাকা হাতিয়ে নেয়ার পর তাদের গুপ্তধন নেয়ার জন্য গোবিন্দগঞ্জে আসতে বলা হয়। শুক্রবার মধ্যরাতে মা-মেয়ে গোবিন্দগঞ্জে যান। সেখান থেকে তাদের দুটি মোটরসাইকেলে করে নিয়ে যাওয়া হয় কাটাখালী নদীর তীরে বালুর চড়ে।

 

সেখানে মা-মেয়ে উভয়কে ভোররাত পর্যন্ত ধর্ষণ করে পালিয়ে যায় প্রতারকরা। এ ঘটনার পর শনিবার সকালে মা-মেয়ে গোবিন্দগঞ্জ থানা পুলিশের আশ্রয় নেয়।

 

গোবিন্দগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মজিবুর রহমান জানান, সারদিন তাদেরকে বুঝিয়ে নানা নাটকীয়তার পর অবশেষে তারা রাতে মামলা করতে রাজি হন। মামলার পর রাতেই আমরা চিহিৃত কিছু জায়গায় অভিযান চালিয়ে সাদা মিয়া নামে একজনকে আটক করেছি।

 

তদন্তের কারণে এর চেয়ে বেশি কিছু বলতে পারবো না। তবে ধর্ষক জ্বীনের বাদশাকে চিহিৃত ও গ্রেপ্তারে তৎপরতা চালানো হচ্ছে।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৩:৩৭ অপরাহ্ণ | মে ১৩, ২০১৮