|

একদিনের সাক্ষাতের প্রেমে ৬৫ হাজার ম্যাসেজ, পরিণতিতে নারীর জেল

লোক লোকান্তরঃ  প্রেম মানেই অনেকের কাছে ‘পাগলামী’। কিন্তু এই পাগলামীরও একটি সীমা আছে। তাই বলে কাউকে ভালোবেসে ৬৫ হাজার খুদে বার্তা পাঠানোটা হয়তো একটু বেশিই বাড়াবাড়ি।

 

সম্প্রতি এমনই কাণ্ড ঘটিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের অ্যারিজোনা রাজ্যের ৩১ বছর বয়সী জ্যাকুলিন এডিস। আর এ জন্য তাকে জেল খাটতে হচ্ছে।

 

সংবাদমাধ্যম নিউ ইয়র্ক টাইমসের খবরে বলা হয়, মাত্র একদিনের সাক্ষাতে এক পুরুষের প্রেমে জ্যাকুলিন এতোটাই হাবুডুবু খেয়েছেন যে এক বছরেরও কম সময়ে তাকে ৬৫ হাজারের বেশি খুদে বার্তা পাঠিয়েছে। তবে প্রিয়জনকে হারানোর ভয়ে বেশিরভাগ বার্তার মাধ্যমে হুমকি দিয়েছেন তিনি।

 

পুলিশ জানায়, জ্যাকুলিন প্রথম সাক্ষাৎকারের পর থেকে ওই পুরুষের পেছন নিয়েছিলেন। এমনকি গত মাসে তার বাড়িতেও অনুপ্রবেশ করেন। প্রিয় মানুষকে এক দিনে পাঠিয়েছেন ৫০০ বার্তা। গত সপ্তাহে জ্যাকুলিন ওই ব্যক্তির অফিসে পর্যন্ত চলে যান। সেখানে যেয়ে তার স্ত্রী হিসেবে দাবি করেন তিনি।

 

এ ঘটনার জ্যাকুলিনের বিরুদ্ধে হুমকি, ছদ্মবেশে অনুসরণ ও হয়রানির অভিযোগে মামলা করে ওই ব্যক্তি। পরে তাকে ঘটনাস্থল থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

 

সম্প্রতি কারাগারে থেকেই যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক বার্তাসংস্থা কেটিভিকের সাক্ষাৎকারে ছিলেন জ্যাকুলিন।

 

জ্যাকুলিন বলেন, ‘আমার মনে হয়েছিলো, নিজের জীবনসঙ্গী খুঁজে পেয়েছি। ভেবেছিলাম, অন্যান্য সুখী দম্পতীদের মতো আমরাও থাকবো এবং আমরা বিয়ে করলেই সব ঠিক হয়ে যাবে।’

 

নিজেকে ‘নব্য হিটলার’ বলে আখ্যা দিয়ে জ্যাকুলিন বলেন, ‘আমি হলাম এমন একজন যে প্রেম খুঁজে পেয়েছিলো।’ আগামী ১৫ মে ওই নারীর আদালতে হাজির হওয়ার কথা রয়েছে।

 

ছবিঃ সংগৃহীত

সর্বশেষ আপডেটঃ ৬:৪০ অপরাহ্ণ | মে ১২, ২০১৮