|

৬ মাসের জন্য গাজীপুর সিটি নির্বাচনে স্থগিত

লোক লোকান্তরঃ  গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচন ছয় মাসের জন্য স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট।

 

রোববার এক রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে বিচারপতি নাঈমা হায়দার ও বিচারপতি জাফর আহমেদের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

 

গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে স্থগিতাদেশের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নির্বাচন কমিশনের আইনজীবী তৌহিদুল ইসলাম।

 

নির্বাচন কমিশন ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, গাজীপুর সিটি করপোরেশনে আগামী ১৫ মে নির্বাচন হওয়ার কথা। ইতিমধ্যে এই নির্বাচনের প্রচার জমেও উঠেছিল। এর মধ্যে আজ এই নির্বাচনে স্থগিতাদেশ দিলেন হাইকোর্ট।

 

 

৪২৫ কেন্দ্রের মধ্যে ৩৩৭টিই ঝুঁকিপূর্ণ

গাজীপুর সিটি করপোরশেনরে ৫৭টি ওর্য়াডরে ৪২৫টি ভোট কেন্দ্রের মধ্যে ৩৩৭টি কেন্দ্রকে ঝুঁকিপূর্ণ (গুরুত্বপূর্ণ) এবং ৮৮টি কেন্দ্রকে সাধারণ কেন্দ্র হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছিল।

 

শনিবার সন্ধ্যায় গাজীপুর সার্কিট হাউজে স্থানীয় সাংবাদকিদরে সঙ্গে মতবিনিময়কালে রিটানিং অফিসার রকিব উদ্দিন মন্ডল ওই তথ্য জানান।

 

ঝুঁকিপূর্ণ ৩৩৭ কেন্দ্রের প্রতিটিতে ২৪জন করে ৮হাজার ৮৮জন এবং ৮৮টি সাধারণ কেন্দ্রের প্রতিটিতে ২২জন করে এক হাজার ৯৩৬জন মোট ১০হাজার ২৪জন আনসার ও পুলশি মোতায়েন থাকার কথা ছিল।

 

এছাড়া প্রতিটি সাধারণ ওর্য়াডে ১০জনের একটি টিম এবং একটি ১০জনের রির্জাভ টিম মোতায়েন থাকবে এতে ৫৮০জন র‌্যাব সদস্য দায়িত্ব পালন করবেন। এছাড়া ৫৮০জন বিজিবি সদস্য দায়িত্ব পালন করবে। ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ: নির্বাচনের আগে ও পরে ৪দিনে ৫৭জন (প্রতি ওর্য়াডে একজন করে) নির্বাহী ম্যাজিষ্টেট নিয়োজিত থাকবে। তাছাড়া আরো ১০জন অতিরিক্ত হিসেবে মোট ৬৭জন ম্যাজিষ্টেট দায়িত্বপালন করার কথা ছিল।

 

১৫মে গাজীপুর সিটি করপোরশেনের ভোট হওয়ার কথা থাকলেও তা স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট। নির্বাচনে ৭জন মেয়র, সংরক্ষিত আসনে ৮৪জন, সাধারণ আসনে ২৫৪জন কাউন্সলির অংশগ্রহন করছেন। এতে ভোটার সংখ্যা ১১লাখ ৩৭হাজার ৭৩৬জন।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৩:১৩ অপরাহ্ণ | মে ০৬, ২০১৮