|

ময়মনসিংহে ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে ব্লেড দিয়ে শিশুর শরীর কাটার ঘটনায় আসামি গ্রেপ্তার

লোক লোকান্তরঃ  ময়মনসিংহের ভালুকায় একটি বিদ্যালয়ে ষষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে ব্লেড দিয়ে তাকে আহত করার ঘটনার মামলায় এক আসামীকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব-১৪)।

 

আজ শনিবার ভোরে রাজধানীর উত্তরা এলাকা থেকে আসামি কাইয়ুম ওরফে নাঈমকে (২২) গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃত নাঈম ওই উপজেলার বেলী ইয়ার্ন ডাইং মিলের কর্মী।

 

র‌্যাবের সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) হাফিজুল ইসলাম বাবু এ অভিযানের নেতৃত্ব দেন।

 

র‌্যাবের এএসপি হাফিজুল ইসলাম বাবু জানান, ঘটনার পর থেকেই আসামি কাইয়ুম পলাতক ছিল। পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

 

উল্লেখ্য, মেয়েটি হবিরবাড়ির সোনারবাংলা উচ্চ বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী। তার বাবা নেই। বোনের বাসায় থেকে পড়ালেখা করত। গত মঙ্গলবার রাতে ওই ছাত্রী বাথরুমে যেতে ঘর থেকে বেরুলে একই এলাকার মাঈনুদ্দিনের ছেলে কাইয়ুম ওরফে নাঈম তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এ সময় তিনি ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে ব্লেড দিয়ে ওই ছাত্রীর শরীরের বিভিন্ন অংশে পোচ দিয়ে পালিয়ে যায়। পরে মেয়েটিকে ভালুকা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

 

 

ধর্ষণচেষ্টার খবর পেয়ে গত বুধবার দুপুরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে সোনারবাংলা উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা। পরে পুলিশ বিচারের আশ্বাস দিলে অবরোধ তুলে নেয়া হয়।

 

ছবিঃ মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে ছাত্রছাত্রীরা।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৫:০৪ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ২১, ২০১৮