|

সরকারি চাকরি না পেয়ে ঢাবিছাত্র তানভীরের আত্মহত্যা

লোক লোকান্তর:

সরকারি চাকরি না পাওয়ার হতাশা থেকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী তানভীর রহমান আত্মহত্যা করেছেন বলে জানিয়েছেন তার স্বজনরা।

তানভীরের খালা মেহেরুননেসা গণমাধ্যমকে জানান, মুক্তিযোদ্ধার সন্তান তানভীর চার বছর ধরে সরকারি চাকরির জন্য চেষ্টা করছিল। চাকরির পরীক্ষা দিয়ে এসে নানা অনিয়ম আর দুর্নীতির কথা বলত সে। চাকরি পেতে টাকা লাগে- এমন হতাশার কথা বলত।

‘সরকারি চাকরি না পাওয়ার হতাশা থেকে ও আত্মহত্যা করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে,’ বলেন তিনি।

তিনি আরও জানান, কিছু দিন আগে বিমানে চাকরি হয়েছিল তানভীরের। কিন্তু দুর্নীতির অভিযোগ ওঠায় ওই নিয়োগ কার্যক্রম স্থগিত হয়ে যায়।

মেহেরুননেসা জানান, তিন দিন আগে উত্তরায় ওর বাবার এক বন্ধুর গার্মেন্টে মার্চেন্ডাইজার হিসেবে কাজ শুরু করেছিল তানভীর। কিন্ত ওই কাজে সে খুশি ছিল না।

২০০৫ সালে বিএএফ শাহীন কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করে তিনি দারুল ইহসান বিশ্ববিদ্যালয়ে বিবিএ করেন।

পরে ২০১৪ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদে অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেম বিভাগে সান্ধ্যকালীন এমবিএ কোর্সে ভর্তি হন তিনি।

উল্লেখ্য, শনিবার রাতে তানভীর এমবিএ ভবনের ৯তলা থেকে ঝাঁপ দেন। রাত ৯টার দিকে তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনায় শাহবাগ থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। দুপুরে পরিবারের সদস্যরা ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে লাশ বুঝে নিয়ে ব্রাক্ষণবাড়িয়ায় যাবে বলে শাহবাগ থানার ওসি আবুল হাসান জানিয়েছেন।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৪:১৯ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ০১, ২০১৮