|

জাতিসংঘে ৭ম দাফতরিক ভাষা বাংলা চাই : আবেদন করবেন যেভাবে

লোক লোকান্তরঃ  বাংলাকে জাতিসংঘের ৭ম দাফতরিক ভাষা হিসেবে গ্রহণ করার দাবিতে “প্রাণ” এর সহযোগিতায় জাগো নিউজ টোয়েন্টিফোর ডট কম ‘জাতিসংঘে বাংলা চাই’ অনলাইন ক্যাম্পেইন। এ ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন আপনিও।

 

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় প্রাণ-আরএফএল সেন্টারে এই ক্যাম্পেইন কর্মসূচির উদ্বোধন করা হয়।

 

এসময় জাতিসংঘের দাপ্তরিক ভাষা হিসেবে বাংলা ব্যবহার সময়ের দাবি বলে মন্তব্য করেছেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। তিনি বলেন, বাংলা ভাষা বিশ্বের অনেক ভাষার চাইতে বৈজ্ঞানিক এবং সমৃদ্ধ। প্রযুক্তিগত জটিলতাও কাটিয়ে উঠছি আমরা। ১৯৫২ সালে তরুণরা রক্ত দিয়ে মায়ের ভাষার অধিকার রক্ষা করেছেন। এখন আমরা আন্দোলনের মধ্য দিয়ে বাংলা ভাষাকে বৈশ্বিক রূপ দেব।

 

‘জাতিসংঘে বাংলা চাই’ স্লোগানকে সামনে রেখে দেশের শীর্ষ নিউজ পোর্টাল জাগো নিউজ টোয়েন্টিফোর ডট কম এর অনলাইন আবেদন কর্মসূচির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে এমন আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

 

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে দাবির পক্ষে বক্তব্য রাখেন, প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের প্রধান নির্বাহী আহসান খান চৌধুরী, প্রাণ গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইলিয়াছ মৃধা, প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের বিপণন পরিচালক কামরুজ্জামান কামাল, জাগো নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম এর সম্পাদক সুজন মাহমুদ ও প্রধান বার্তা সম্পাদক মহিউদ্দিন সরকার।

 

অনুষ্ঠানের শুরুতেই ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। আলোচনায় অংশ নিয়ে মন্ত্রী বলেন, বাংলা ভাষার ইতিহাস সবারই জানা। রক্ত দিয়ে ভাষার অধিকার প্রতিষ্ঠা করার ইতিহাস দ্বিতীয়টি আর নেই। ভাষার নামেই প্রতিষ্ঠা পেয়েছে ‘বাংলাদেশ’।

 

তিনি বলেন, ভাষাকেন্দ্রিক আন্দোলনের হাজার বছরের ইতিহাস থাকলেও চূড়ান্ত আন্দোলনের রূপায়ন ঘটে ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি। ১৯৭০ সালে বঙ্গবন্ধু প্রতিজ্ঞা করেছিলেন, আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করলে সর্বত্র বাংলা ভাষার প্রচলন ঘটবে। স্বাধীনতার পর ১৯৭২ সালেই বঙ্গবন্ধু বাংলা ভাষার ব্যবহার এবং উন্নয়নে নানা উদ্যোগ নিয়েছিলেন। প্রশাসন, ব্যাংক, আদালত এমনকি সেনা কমান্ডেও বাংলার ব্যবহার নিশ্চিত করার তাগিদ দিয়েছিলেন।

 

 

মোস্তাফা জব্বার বলেন, জাতিসংঘে বাংলার ব্যবহার নিশ্চিত করতে স্ব-স্ব জায়গা থেকে দাবি তুলতে হবে। এ কর্মসূচির উদ্বোধন করতে পেরে নিজেকে ধন্য মনে করছি। অনলাইনে আবেদনের মাধ্যমে এই দাবি সর্বত্র ছড়িয়ে পড়বে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করছি।

 

উল্লেখ্য, বাংলাদেশ ও বাংলাদেশের বাইরে থেকে যেকোনো ব্যক্তি তার নাম এবং ই-মেইল অথবা মোবাইল নম্বর ব্যবহার করে আবেদন (পিটিশন) করতে পারবেন। কর্মসূচি শেষে জাতিসংঘের মহাসচিব বরাবর আবেদনটি পৌঁছে দেয়া হবে। মাসব্যাপী এই কর্মসূচিতে সহায়তা করছে শীর্ষ ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান ‘প্রাণ’।

 

আবেদন করতে ভিজিট করুন : www.jagonews24.com/makebanglaofficial

 

এরপর নাম, ই-মেইল বা ফোন নাম্বার দিন, I’m not a robot -এ টিক দিয়ে ‘আমি সমর্থন করছি’ বাটনে ক্লিক করুন। একটি ই-মেইল বা ফোন নাম্বার থেকে একবার আবেদন করা যাবে।

 

সুত্রঃ  জাগো নিউজ টোয়েন্টিফোর ডট কম

সর্বশেষ আপডেটঃ ২:৪৫ অপরাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ০৬, ২০১৮