|

ময়মনসিংহ জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রকের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক

লোক লোকান্তরঃ  ময়মনসিংহ জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক (ডিসি ফুড) সাইফুল ইসলামের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক করা হয়েছে।

 

শনিবার (১৮ নভেম্বর) জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক (ডিসি ফুড) সাইফুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, তার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক করে দিনভর ফ্রেন্ডলিস্টে থাকা বিভিন্ন বন্ধুদের কাছে বিভিন্ন অংকের টাকা চাওয়া হয়। ফেসবুকের মাধ্যমে এই প্রতারণায় তিনি বিব্রত হচ্ছেন।

 

তিনি বলেন, এ ঘটনার সঙ্গে একটি চক্র জড়িত। তাদের শনাক্ত করতে থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়েছে।

 

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুল ইসলাম বলেন, পুলিশ ইতোমধ্যেই তৎপরতা শুরু করেছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত চক্রকে আইনের আওতায় আনা হবে।

 

ফেসবুক অ্যাকাউন্ট সুরক্ষিত রাখার উপায়

অনলাইনে ফেসবুক হ্যাকিং এর সাথে সবাই কম বেশি পরিচিত, যার ভয়ে আমরা আমাদের সোশ্যাল সাইট অ্যাকাউন্ট নিয়ে সবাই কম বেশি চিন্তিত থাকি। যার জন্য আমাদের সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারের ব্যাপারে আগের চাইতে বেশি রক্ষনশীল ও সজাগ হওয়ার প্রয়োজন বেড়েছে বলা যায়। ফেসবুক অ্যাকাউন্ট সুরক্ষিত রাখার উপায় হলঃ

 

*ফেসবুক ফিশিং ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাকিং এর সবচাইতে প্রচলিত মাধ্যম। হ্যাকার একটি ক্লোন ফেসবুক লগইন পেজ লিংক তৈরি করে (যেমনঃ facebook.cixx6.com), যেই পেজের মাধ্যমে ইউজার লগইন করলে তার ইউজার নেম ও পাসওয়ার্ড সেভ হয়ে যায় হ্যাকারের কম্পিউটারে।

*কি-লগিং এমন এক পদ্ধতি যেখানে একটি সিম্পল সফটওয়্যারের মাধ্যমে ভিকটিমের কম্পিউটারে যাই টাইপ করা হবে তাই ওই প্রোগ্রাম রেকর্ড করে নিবে।

*ব্রাউজারে ফেসবুক অ্যাকাউন্ট প্রথম লগইন করতে গেলে পাসওয়ার্ড সেভ করতে সাজেশন দিবে, যেটা কখনই করবেন না। কেননা এতে পাসওয়ার্ড ছড়িয়ে পরার ঝুঁকি থাকে।

*মোবাইল ফোনের মাধ্যমে ফেসবুক লগইন করে অনেকেই লগ আউট করেনা, চাইলে ফোনের মাধ্যমেও খুব সহজেই হ্যাকিং করা সম্ভব। এছাড়া ফোনের মাধ্যমে ফেসবুকের অ্যাকাউন্ট পাসওয়ার্ড রিসেট দেয়ার ফলে একটি বিশেষ সফটওয়্যার আছে যার মাধ্যমে চাইলেই আপনার মেসেজ গুলো হ্যাক করে সহজেই পাসওয়ার্ড জানা যাবে।

*ধরুন আপনি খুব সাধারন পাসওয়ার্ড ব্যবহার করছেন, চাইলে যেকেউ আপনার উপর রিসার্চ করে আপনার ফেসবুক পাসওয়ার্ড ধারনা করে অ্যাকাউন্ট হ্যাক করতে পারে।

*আপনার ইমেইল অ্যাকাউন্ট জানতে পারলে পাসওয়ার্ড হ্যাক করা সম্ভব।

*এছাড়া আজকাল দেখা যায় বিভিন্ন সাইটের অ্যাপ, গেম, বা সাইটে রেজিস্ট্রেশন করতে ফেসবুক দিয়ে লগইন করার সাজেশন দেয়। যা একদমই অনুচিত।

 

তাহলে এই ধরণের সমস্যা থেকে বাচার উপায় কি –

*সবার আগে ফেসবুকে লগইন করার পর সব সময় লগ আউট করে বের হতে হবে।

*কখনই নিজের পিসি ছাড়া যে কারো পিসি বা ল্যাপটপ বা ফোন/ট্যাব থেকে ফেসবুক লগইন করবেন না।

*সেই সব ইমেইল গুলো এরিয়ে যান যেখানে আপনাকে নতুন ট্যাবে ফেসবুক অ্যাকাউন্টে লগইন করতে বলে।

*কোন স্প্যাম মেসেজ খুলবেন না, আপনার ইমেইলে বা মেসেজ ইনবক্সে এমন মেসেজ আস্তে পারে।

*সবসময় ক্রম ব্রাউজার ব্যবহার করা ভাল, ক্রোম ব্রাউজার ফিশিং পেজ সনাক্ত করতে পারে।

*কম্পিউটারে সবসময় অ্যান্টিভাইরাস ব্যবহার করুন।

*সবসময় ফেসবুকে লগইন করতে গেলে অ্যাড্রেস বাড়ে লিংকটি চেক করে দেখবেন, তা যেন com হয়।

*সবসময় জনপ্রিয় ও বিশ্বস্ত ওয়েবসাইট থেকে সফটওয়্যার ডাউনলোড করুন।

*সবসময় পেনড্রাইভ স্ক্যান করে ভাইরাস আছে কিনা চেক করে তা ব্যবহার করবেন।

*ওয়েব ব্রাউজারে কখনই আপনার অ্যাকাউন্টের পাসওয়ার্ড সেভ করবেন না।

*অবশ্যই ইমেইলে ও সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইটে শক্তিশালী পাসওয়ার্ড ব্যবহার করবেন, ওয়ার্ড, নাম্বার ও সাইনের *

*সমন্বয়ে শক্তিশালী পাসওয়ার্ড বানানো যায়।

*মোবাইল ফোনে ভালমানের অ্যান্টিভাইরাস ব্যবহার করুন।

*যা তা অ্যাপ ফোনে ব্যবহার থেকে বিরত থাকুন।

*ফোনে অপ্রয়োজনীয় অ্যাপ থাকলে মুছে ফেলতে হবে।

*স্পাইওয়ার এবং ফ্রিওয়ার সফটওয়্যার এড়িয়ে চলুন।

 

 

ফেসবুক আইডি হ্যাক হয়ে গেলে কীভাবে তা পুনরুদ্ধার/বন্ধ করবেন

ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়ে গেলে আমাদের ব্যক্তিগত তথ্য অন্যের হাতে চলে যায়। এসময় অস্থির না হয়ে ঠাণ্ডা মাথায় প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে হবে। এর জন্য কিছু প্রয়োজনীয় বিষয় জেনে নিতে হবে-

 

আইডি হ্যাক হয়েছে কিভাবে বোঝা যায়?

আইডি হ্যাক হয়েছে কিনা এ বিষয়ে প্রথমে নিশ্চিত হতে হবে। এক্ষেত্রে নিচের লক্ষণগুলো দেখা দিলেই আমরা বুঝবো আইডি হ্যাক হয়েছে-

আপনার ইমেইল অথবা পাসওয়ার্ড চেঞ্জ হয়ে যাওয়া।
আপনার নাম অথবা তথ্য চেঞ্জ হয়ে যাওয়া।
আপনার অজান্তে কাউকে ফ্রেন্ড রিকুয়েস্ট পাঠানো।
কাউকে ম্যাসেজ পাঠানো, যা আপনি লেখেন নি।
কোন কিছু পোস্ট বা শেয়ার করা, যা আপনি করেন নি।

 

কি উপায়ে আইডি হ্যাক হতে পারেঃ

সাধারণত ২ টি উপায়ে আপনার ফেসবুক আইডি হ্যাক হতে পারে। যেমন-

১) পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করে ও

২) ই-মেইল এড্রেস পরিবর্তন করে।

 

আইডি হ্যাক হলে কিভাবে একাউন্ট পুনরুদ্ধার করা যাবে?

ধরুন কেউ একজন আপনার অগোচরে আপনার ফেসবুক আইডির পাসওয়ার্ড জেনে গিয়েছে এবং আপনার একাউন্টে লগইন করে আপনার পুরাতন পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করে নতুন পাসওয়ার্ড সেট করে দিয়েছে। এখন আপনি আর পুরাতন পাসওয়ার্ড দিয়ে ফেসবুকে লগইন করতে পারবেন না।

নিচের ধাপ গুলো ফলো করলে সাথে সাথে একাউন্ট ফেরত পাওয়া যাবে। শুধু পুরাতন পাসওয়ার্ডটা মনে রাখতে হবে।

 

সর্ব প্রথম এই লিঙ্কে ঢুকতে হবে- http://www.facebook.com/hacked । এই লিঙ্কে ঢুকলে Report Compromised Account নামে একটি পেইজ দেখা যাবে। এবার My account is compromised এই বাটনে ক্লিক করতে হবে।
Identify Your Account থেকে একাউন্ট শনাক্ত করতে Email or phone number কিংবা Facebook username অথবা your name and a friend’s name এই তিনটি অপশানের যেকোন একটিতে প্রয়োজনীয় তথ্য দিয়ে SEARCH বাটনে ক্লিক করুন।

 

প্রদত্ত তথ্য সঠিক হলে লেখা আসবে- This is My Account। এখন This is My Account এ ক্লিক করতে হবে।
ওপরে ক্লিক করার পর পুরাতন পাসওয়ার্ডটি চাইবে এভাবে- Enter a Correct or Old Password।

 

এখানে পুরাতন পাসওয়ার্ড দিয়ে কন্টিনিউ করতে হবে। এরপর একটা কনফার্মেশন মেসেজ আসবে। তার পরে কন্টিনিউ করে পরের স্টেপগুলি পার করতে হবে। পরের স্টেপে কাছ থেকে একটি নতুন পাসওয়ার্ড চাওয়া হবে। পরের ফর্মগুলো ঠিকঠাক ফিলাপ করলে ফেসবুক থেকে একাউন্ট আবার ফেরত পাওয়া যাবে।

 

ফেসবুক আইডিতে ব্যবহার করা ই-মেইল ও ফেসবুক আইডির পাসওয়ার্ড ভিন্ন রাখা উচিৎ। কারণ হ্যাকাররা সাধারণত ফেসবুক হ্যাক করার পর ই-মেইল এড্রেস বদলে ফেলে। আর ই-মেইল এড্রেস বদলে ফেলতে পারলে হ্যাকিং হওয়া ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ফিরে পাওয়া কঠিন। হ্যাকিং হওয়া অ্যাকাউন্ট উদ্ধারের একমাত্র উপায় হলো ই-মেইল এড্রেস।

 

এভাবেই আশা করা যায় হ্যাক হওয়া আইডি ফেরত পাওয়া যাবে। যদি এই দুই পদ্ধতিতেও কাজ না হয় সেক্ষেত্রে অ্যাকাউন্টটি চিরতরে ডিলিট করে দেবার অপশন আছে।

 

আইডি হ্যাক হলে কিভাবে একাউন্ট ডিলিট করা যাবে?

১। একাউন্ট এর উপরে ডানকোনায় এখানে ক্লিক করতে হবে।

২। Report/block ক্লিক করতে হবে।

৩। ‘This is my old profile’ এ ক্লিক করে নিচের অপশনগুলো থেকে ‘close this account’ সিলেক্ট করতে হবে। সঠিকভাবে রিপোর্ট করা হলে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ প্রোফাইল রিভিউ করবে এবং সত্যিই তা রিপোর্টকারীর আগের প্রোফাইল বলে প্রমানিত হলে একাউন্ট বন্ধ করে দেয়া হবে।

 

বি. দ্র. বর্তমান একাউন্ট এর ফ্রেন্ডলিস্ট এ আগের একাউন্টটি থেকে থাকলে ‘This is my old profile’ অপশনটি পাওয়া যাবেনা। রিপোর্ট করার আগে তাই অবশ্যই আগের একাউন্টটি ‘আনফ্রেন্ড’ করে নিতে হবে।

সর্বশেষ আপডেটঃ ১২:০২ অপরাহ্ণ | নভেম্বর ১৯, ২০১৭