|

“ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের কাঙ্ক্ষিত উন্নয়ন সম্ভব নয় !”

লোক লোকান্তরঃ  ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের বারবার তাগিদ দিয়েও কাঙ্ক্ষিত সুরাহা না পেয়ে ফেসবুকে পোস্ট করেছেন ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. নাছির উদ্দিন আহমেদ।

 

মঙ্গলবার ‘ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পরিচালকের উপলব্ধি’ শিরোনামে তিনি ফেসবুকে এই পোস্টটি করেন যা ‘লোক লোকান্তর’ এর পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হল।

 

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. নাছির উদ্দিন আহমেদ ফেইসবুক পোস্টে লিখেছেন, আমি হয়তো ক্লান্তিকর সময় অতিবাহিত করছি। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের কাঙ্ক্ষিত উন্নয়ন সম্ভব নয়। নীতিনির্ধারকদের উদাসীনতা, রোগীদের অতিরিক্ত চাপ, সম্পদের সীমাবদ্ধতা, সব বিষয়ে সময়ক্ষেপণ, অপরাজনীতি, কিছু কিছু কর্মচারী ও কর্মকর্তাদের দায়িত্বশীলতার অভাব, রোগীর এটেন্ডেন্টদের দায়িত্ববোধ এর অভাব সব মিলিয়ে সরকারি সংস্থা ভালো ও কার্যকর রোগীবান্ধব সেবা দিতে পারছে না।

 

সব মিলিয়ে, বিশেষ করে সেবিকাদের আচরণগত ক্রটি ও দায়িত্ব পালনে আন্তরিকতার চরম অভাব, তাদেরকে প্রশাসনিক কারণে বদলির জন্য লেখা হলেও তা কোনো অজানা কারণে কার্যকর না হওয়ায় একজন সংস্থা প্রধানকে অসন্মানিত করা হয়।

 

আমি আমার কাজকে ভালোবাসি। মুক্তিযোদ্ধা বাবার সন্তান। আত্মমর্যাদা নিয়ে বাঁচতে চাই। দাসত্ব করার জন্য নয়।

 

আমি যথাযথ কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি এর সমাধান এর জন্য। অন্যথায় আমাকে প্রত্যাহার করে সেনাবাহিনীতে ফেরত নিয়ে যাওয়া হউক।

 

অনেকে প্রশ্ন উত্থাপন করতে পারেন ফেসবুকে লিখলাম কেন? স্বাভাবিক অফিসিয়াল যোগাযোগ করে যখন ব্যর্থ হয়েছি তখনি জনগণের নিকট দায়বদ্ধতা থেকে এভাবে লিখতে হলো।

 

পোস্টটি দেয়ার পর মন্তব্যে তিনি লিখেছেন, প্রিয় ময়মনসিংহ বিভাগবাসী আপনারা আমার শ্রদ্ধেয়। দয়া করে উপদেশ দিবেন না। হাসপাতালে এসে একজন সুনাগরিক হিসেবে সমস্যাগুলো গভীরভাবে অনুধাবন করুন এবং আমার কাছ থেকে জানুন। তারপর দয়া করে মন্তব্য করবেন। কারো অনুভূতিতে আঘাত করলে ক্ষমা প্রার্থী।

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষ আপডেটঃ ১১:৫৮ পূর্বাহ্ণ | সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৭