|

সর্বশেষ

বাজিতপুরে পাটের বাম্পার ফলন; কৃষকের মুখে হাসি

মহিউদ্দিন লিটন, বাজিতপুর (কিশোরগঞ্জ) সংবাদদাতাঃ- কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর উপজেলার পৌরসভাসহ ১১টি ইউনিয়নে এ বছর গতবারের তুলনায় এ বছর অনুকূল আবহাওয়া, সারসংকট না থাকা, ভালো বীজের সহজলভ্যতা এবং কৃষি বিভাগের পর্যাপ্ত পরামর্শ পাওয়ায় কৃষকরা এ বছর পাট উৎপাদনে ভালো করেছে। অন্যদিকে গতকাল শনিবার পাইকারী বাজারে গেলে কয়েকজন কৃষক জানান, অন্যান্য বছরের তুলনায় এ বছর তারা পাটের দাম ভালো পাচ্ছেন। এবার বাজিতপুর উপজেলায় ১ হাজার হেক্টর জমিতে পাট চাষ আবাদ হয়েছে। সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে, কৃষকরা তুষা পাটের মণ প্রতি ১৭শত টাকা ও ভট পাটের মণ প্রতি ১৭শত টাকা থেকে ১৭৫০ টাকায় কৃষকরা পাইকারদের নিকট বিক্রি করছেন। বাজিতপুর কৃষি সম্প্রসারণ সূত্র জানায়, পৌরএলাকাসহ অন্যান্য উপজেলায় পাটের চাষ দ্বিগুন বেড়েছে। গত বছর প্রায় ৯শত হেক্টর জমিতে পাট চাষ হয়েছে কিন’ এ বছর ১ হাজার হেক্টর জমিতে পাট চাষের আওতায় আনা হয়েছে। এবার গত বছরের তুলনায় এ বছর লৰ্যমাত্রার চেয়ে অনেক বেশি পাট উৎপাদন হয়েছে। কৃষকরা পাট বিক্রি করার পর অবশিষ্ট পাট খড়ি ও ভালো দামে বিক্রি করছে। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা এ.বি.এম রাকিবুল হাসান জানান, অন্যান্য বছরের তুলনায় এ বছর পাটে ফলন ভালো হয়েছে। এতে করে পাট চাষীরা উংসাহিত হচ্ছেন। বাজার ঠিক থাকলে কৃষকরা আরো লাভবান হবেন।

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষ আপডেটঃ ৯:১৯ অপরাহ্ণ | আগস্ট ১৩, ২০১৬