|

মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডেও নির্দেশ উপেক্ষিত ত্রিশালে জেএসসি ও জেডিসি ফরম পূরণে অতিরিক্ত ফি আদায়

ত্রিশাল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি, ৬ আগস্ট ২০১৬, শনিবার
ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার ফরম পূরণে অতিরিক্ত ফি আদায়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে।
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের ভারপ্রাপ্ত পরিক্ষা নিয়ন্ত্রক তফন কুমার সরকার স্বাক্ষরিত ২১ জুলাই জারিকৃত জরুরি বিজ্ঞপ্তিতে চলতি বছরের ১১ জুলাই/১৬ইং তারিখে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তি মোতাবেক ফরম পূরণের নির্ধারিত ফি দেওয়া থাকলেও তা মানছেনা ত্রিশাল উপজেলার অধিকাংশ প্রতিষ্ঠানের প্রধানরা।
বিজ্ঞপ্তিটিতে আরো উলেৱখ রয়েছে, বোর্ড ফি ১০০ টাকা ও কেন্দ্র ফি ১৫০ টাকা এর অতিরিক্ত অর্থ আদায়কারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে মর্মে আদেশ জারি করা হয়। সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে উপজেলার বিভিন্ন মাধ্যমিক ও দাখিল মাদ্রাসার প্রধানরা নির্ধারিত ফি এর কয়েকগুণ অর্থ, রশিদ বিহীন আদায় করছে বলে জানান শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের অনেকেই।
এ সকল অভিযোগের প্রেৰিতে প্রতিষ্ঠান প্রধানদের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তার সত্যতা মিলে।
এ বিষয়ে সাখুয়া শেখ বাজার দাখিল মাদরাসার অফিস সহকারী লুৎফুর রহমান জানান, এবার জেডিসি পরীক্ষার ফরম পূরণে খরচ সহ ১ হাজার টাকা করে আদায় করা হয়েছে।
আউলিয়া নগর আলিম মাদরাসার দায়িত্বপ্রাপ্ত ফরম পূরণের দায়িত্বে নিয়োজিত আব্দুল হেকিম মাস্টার জানন, জেডিসি পরিৰার ফরম পূরণে ৮০০-১২০০ টাকা নেওয়া হচ্ছে।
মুকিমাবাদ আব্দুল কাদের জিলানী (র:) দাখিল মাদরাসার সহকারী সুপার তানজেল হোসেন জানান, এ বছর জেডিসি পরীৰার ফরম পূরণ বাবদ ৬শত করে টাকা নেওয়া হয়।
এভাবেই উপজেলার পাটুলী রহমত উলৱাহ উচ্চ বিদ্যালয়ে ১৫০০ টাকা, কাশিগঞ্জ দাখিল মাদরাসায় ১০০০ টাকা, আর.জে উচ্চ বিদ্যালয়ে ৯৫০ টাকাসহ প্রায় সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানরা বিভিন্ন অজুহাত ও ৩মাস কোচিংয়ের দোহাই দিয়ে রশিদ বিহীন অতিরিক্ত অর্থ আদায় করছেন। কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে দায় এড়াতে শিক্ষকদের সমন্বয়ে ফরম পূরণের জন্য আলাদা আভ্যন্তরিন কমিটি করে দিয়েছেন সংশিৱষ্ট প্রতিষ্ঠান প্রধানগণ।
উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা চাঁন মিয়া মনির জানান, জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার ফরম পূরণে নির্ধারিত ফি এর অতিরিক্ত অর্থ আদায়কারী প্রতিষ্ঠান প্রধানদের বিরুদ্ধে অভিযোগ পাওয়া গেলে বিধি মোতাবেক ব্যবস’া নেওয়া হবে।

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষ আপডেটঃ ১০:৩৪ অপরাহ্ণ | আগস্ট ০৬, ২০১৬