|

সর্বশেষ

গৌরীপুর উপ-নির্বাচনে আনসার নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার | ১৫ জুলাই ২০১৬, শুক্রবার

আগামী ১৮ জুলাই ময়মনসিংহ- ৩, গৌরীপুর আসনে উপ-নির্বাচনে ৮৭টি ভোট কেন্দ্রের নিরাপত্তার দায়িত্ব পালনের জন্য ১২১৮ জন আনসার নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া গেছে। জানা যায়, ময়মনসিংহ-৩ গৌরীপুর আসনে আগামী ১৮ জুলাই নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করেন নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন সুষ্ঠু ও নিরপেৰ করার জন্যে প্রশাসন ইতিমধ্যে সকল প্রক্রিয়া সম্পন্ন করেছেন। নির্বাচনে ৮৭টি ভোট কেন্দ্রের আইন শৃঙ্খলা রৰা ও নিরাপত্তার জন্য ১২১৮ জন আনসার নিয়োগের জন্য গত ১০ জুন বাছাই অনুষ্ঠিত হয়। আনসার নিয়োগের সময় পার্শ্ববর্তী উপজেলা সমূহে থেকেও প্রশিৰণপ্রাপ্ত সহ স্মার্ট কার্ডধারী আনসার সদস্যরাও যাচাই বাছাইয়ে উপসি’ত ছিলেন। কিন’ যোগ্যতা সম্পন্ন আনসার সদস্যদের নিয়োগ দেয়া হয়নি বলে পার্শ্ববর্তী উপজেলাগুলো থেকে আগত প্রশিৰিত স্মার্ট কার্ডধারী অনেক আনসার সদস্যই এসব অভিযোগ করেন। পৰান্তরে তারা অভিযোগ করেন গৌরীপুর থেকে যেসব আনসার সদস্য নিয়োগ দেয়া হয়েছে তাদের অধিকাংশই ভিডিপি সদস্য ও তারা পর্যাপ্ত প্রশিৰণপ্রাপ্ত নয় এবং শারীরিকভাবে যোগ্য নয়। একটি সূত্র জানায়, এ নিয়োগে নিয়োগ কমিটির অগোচরে উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা ও উপজেলা আনসার ভিডিপি প্রশিৰক (মহিলা) যোগসাজুসে প্রতি জনের নিকট থেকে ৫০০ টাকা হারে উৎকোচ নিয়ে নিয়োগ দিয়েছেন। যোগ্য ও দৰ প্রশিৰণপ্রাপ্ত প্রার্থীরা পুনরায় ঊর্ধ্বতন কর্তৃপৰের উপসি’তিতে আনসার নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার দাবী জানান। এ ব্যাপারে ময়মনসিংহের জেলা কমান্ড্যান্ট কার্যালয়ে সার্কেল এ্যাডজ্যুট্যান্ট জিন্নাতুল ইসলামের সাথে মুঠো ফোনে কথা হলে তিনি জানান, আমরা নিয়োগ কমিটি নিয়োগের সময় মাইকে ঘোষণা দিয়ে নির্বাচন ডিউটির কাজে নিয়োগ পেতে কোন টাকা পয়সা লাগে না। কেউ টাকা দিবেন না, দিলে নিজ দায়িত্বে তা উঠিয়ে নিবেন বলে ঘোষনা দিয়েছি। টাকা নেয়ার বিষয়টি আমাদের জানা নেই, আমরা সুষ্ঠুভাবে যাচাই বাছাই করে নিয়োগ দিয়েছি। গৌরীপুর উপজেলার বাইরে থেকে ১২ জনকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে। উপজেলা আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা সোহরাব হোসেন এর সাথে কথা হলে তিনি টাকা নেয়া বা অনিয়মের বিষয়টি সম্পূর্ণ অস্বীকার করেন।

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষ আপডেটঃ ৭:৪৯ অপরাহ্ণ | জুলাই ১৫, ২০১৬