|

জলঢাকায় দুই মেয়েকে হত্যার পর মায়ের আত্মহত্যা

অনলাইন ডেস্ক | ৬ ডিসেম্বর ২০১৫, রবিবার,

নীলফামারীর জলঢাকায় দুই শিশু কন্যাকে হত্যার পর গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন ফেন্সি বেগম (৩২) নামে এক নারী। রোবববার সকালে নীলফামারীর জলঢাকা উপজেলার কাঠালি  ইউনিয়নের দেশীবাড়ী আশ্রয়ন প্রকল্পে ঘটনাটি ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ সকাল সাড়ে এগারোটায় ঘটনাস্থল থেকে মা ও দুই মেয়ের মৃতদেহ সহ তিনটি লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। ফেন্সি বেগম কাঠালি ইউনিয়নের মো. আশরাফ আলীর স্ত্রী। তাদের দুই মেয়ে আকলিমা বেগম (৮) ও খাদিজা বেগম (৪)। স্থানীয়রা জানায়, আশরাফ সকালে কাজ করার জন্য বাড়ি থেকে বের হন। এরপর সকাল সাড়ে নয়টার দিকে প্রতিবেশীরা দেখতে পান তার দুই মেয়ের মৃতদেহ বিছানায় এবং ঘড়ের আড়ার সঙ্গে ফেন্সির লাশ ঝুলে রয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠিয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে দুই শিশু কন্যাকে হত্যার পর মা আত্মহত্যা করেছে। তবে হত্যা ও আত্মহত্যার কোন কারন জানা যায়নি। এ ঘটনায় ফেন্সী বেগমের স্বামী আশরাফ আলীকে আটক করেছে পুলিশ। জলঢাকা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দিলওয়ার হাসান ইনাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে পারিবারিক কলহের জেরে এ হত্যাকান্ডের ঘটনাটি ঘটতে পারে।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৪:৫৫ অপরাহ্ণ | ডিসেম্বর ০৬, ২০১৫