|

বিট কর্মকর্তা ভালুকা উপজেলা কমান্ডারকে অসন্মান করার প্রতিবাদে মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতিবাদ সমাবেশ

ভালুকা (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি- ১০ জুন, বুধবার, 

ভালুকা উপজেলা হবিরবাড়ি বনবিট কর্মকর্তা এইচ এম সাইদুর রহমান মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মফিজুর রহমানকে অসন্মান করার প্রতিবাদে মঙ্গলবার দুপুরে মুক্তিযোদ্ধাগণ ভালুকা উপজেলা কমান্ড কার্যালয়ে এক প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করে।
সাবেক উপজেলা কমান্ডার গাজী আবুল হোসেন খান মিলনের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম পিন্টু, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মনিরা সুলতানা মণি, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কামরুল আহসান তালুকদার, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার গাজী মফিজুর রহমান, গাজী আবু বকর সিদ্দিক, গাজী চান মিয়া, গাজী নুরম্নল ইসলাম, গাজী গোলাম মোসত্মফা খান, গাজী শুকুর মাহমুদ, ভালুকা প্রেস ক্লাব সভাপতি এস এম শাহজাহান সেলিম প্রমুখ।
সমাবেশে মুক্তিযোদ্ধাদের পক্ষ হতে অভিযোগ করা হয় গত ৭ জুন রোববার দুপুরে বাঁশিল গ্রামে মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মফিজ উদ্দিন তার নিজস্ব জমিতে রোপনকৃত দুটি মেহগণি গাছ কাটায় বিট কর্মকর্তা বাঁধা দেয়। এ সময় তিনি নিজেকে একজন মুক্তিযোদ্ধা পরিচয় দিয়ে বলেন তিনি নিজে গাছগুলি রোপন করেছেন আসবাবপত্র তৈরির জন্য দুটি গাছ কেটেছি । প্রতি উত্তরে অসন্মান জনক ভাষায় বিট কর্মকর্তা বলেন ‘এমন অনেক মুক্তিযোদ্ধা দেখেছি- বনের জমি থেকে গাছ কাটার অনুমতি কে দিয়েছে ইত্যাদি ইত্যাদি। পরে গাছগুলো হবিরবাড়ি রেঞ্জ অফিসে নিয়ে যাওয়া হয়। তারা আরো অভিযোগ করেন উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে নিরিহ মুক্তিযোদ্ধাদের একের পর এক বন মামলা দিয়ে হয়রানি করে চলেছেন। আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে বিট কর্মকর্তার বিরোদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা না নিলে বন অফিস ঘেরাও করবেন বলে সমাবেশে সিদ্ধান- নেয়া হয়। এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার মাধ্যমে বিভাগীয় বন কর্মকর্তার বরাবরে মুক্তিযোদ্ধাদের পক্ষ হতে একটি লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে।
বনবিট কর্মকর্তা এইচ,এম সাইদুর রহমান মোবাইল ফোনে বলেন,বনের জমি থেকে গাছ কেটে নেয়ার হচ্ছে সংবাদ পেয়ে আমি অফিসের স্টাফ নিয়ে সেখানে গেলে মফিজুর রহমানের কথা হয়,তাঁরকে অসম্মান জনক কোন কথা বলিনি।

সর্বশেষ আপডেটঃ ৮:৪৫ অপরাহ্ণ | জুন ১০, ২০১৫