|

জাতীয় পে-স্কেল নিয়ে ক্ষোভ ও প্রতিবাদ জানিয়েছে বাকৃবি শিক্ষক সমিতি

বাকৃবি সংবাদদাতা : ১৭ মে ২০১৫, রবিবার,

প্রস্তাবিত অষ্টম জাতীয় পে-স্কেলে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকদের অবমূল্যায়ন করা হয়েছে দাবি করে ক্ষোভ ও প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (বাকৃবি) শিক্ষক সমিতি।

শনিবার (১৬ মে) বিকেলে শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. খন্দকার শরীফুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. রফিকুল ইসলাম সরদার স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি জানানো হয়েছে।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, প্রস্তাবিত ৮ম জাতীয় পে-স্কেলে মন্ত্রিপরিষদ/মুখ্য সচিব ও সিনিয়র সচিবদের বেতন স্কেল আলাদা আলাদা করে বাড়িয়ে দ্বিগুণ করা হয়েছে। পদায়িত সচিবদের জন্য নতুন একটি বেতন স্কেল করা হয়েছে। কিন্তু বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনিয়র অধ্যাপকদের (সিলেকশন গ্রেড) বেতন স্কেল সচিবদের থেকে একধাপ নামানো হয়েছে।

প্রস্তাবিত বেতন স্কেলটি বৈষম্যমূলক উল্লেখ করে অধ্যাপকদের বেতন স্কেলটি সিনিয়র ও পদায়িত সচিবদের বেতনের সমান করার দাবি জানায় বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি।
একই সঙ্গে বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগী অধ্যাপক, সহকারী অধ্যাপক এবং লেকচারারদের বেতন কাঠামো অধ্যাপকদের বেতনের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ করে সরকারি কর্মকর্তাদের জন্য নির্ধারিত সুযোগ-সুবিধা প্রদানের দাবি জানানো হয় সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে।

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষ আপডেটঃ ৬:৪৭ অপরাহ্ণ | মে ১৭, ২০১৫