|

তারাকান্দা ইউপি চেয়ারম্যানকে জড়িয়ে মিথ্যা সংবাদ প্রকাশের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

 

রফিক বিশ্বাস ঃ ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলার তারাকান্দা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানকে জড়িয়ে স্থানীয় একটি সাপ্তাহিক পত্রিকায় মিথ্যা সংবাদ প্রকাশের প্রতিবাদে আজ শুক্রবার ইউপি মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আঃ জব্বার বলেন, ২০১১ সনের ইউপি নির্বাচনে তাহার প্রতিদ্বন্ধী প্রার্থী ওবায়দুল করিম তাহার জনপ্রিয়তায় ঈর্ষান্বিত হইয়া জনমনে ভূল ধারনা সৃষ্টির উদ্দেশ্যে জনৈক মোকছেদুল ইসলাম নামক এক যুবককে অভিযোগকারী বানিয়ে ১১ ফেব্রম্নয়ারী জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার ও দুদক বরাবরে কাল্পলিক, মিথ্যা, বানোয়াট লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। যা ইতিপূর্বে মিথ্যা প্রমাণিত হয়। একই সঙ্গে কথিত অভিযোগকারী মোকছেদুল ইসলাম গত-১০ মার্চ তারাকান্দা থানায় জিডি করেন। যার নং- ৩৬৪, উক্ত জিডির অভিযোগে মোকছেদুল ইসলাম বলেন তাকে ভূল বুঝাইয়া গত ইউপি নির্বাচনে নির্বাচিত চেয়ারম্যান আঃ জব্বারের বিরম্নদ্ধে মিথ্যা, কাল্পনিক, বানোয়াট অভিযোগ তৈয়ার করিয়া সংশিস্নষ্ট কর্তৃপক্ষের বরাবরে দাখিল করেন। অভিযোগকারী তার দায়ের করা জিডিতে উলেস্নখ করেন, আমি একজন সহজ, সরল ও অশিক্ষিত লোক। অভিযোগ দায়েরের পর সে জানতে পারে ওবায়দুল করিম পরিকল্পিত ভাবে ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আঃ জব্বারকে হয়রানী করার উদ্দেশ্যে তাকে ভূল বুঝাইয়া স্বাক্ষর নিয়া অভিযোগটি দায়ের করেন। তিনি আরও বলেন, অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত এবং এই অভিযোগ সর্ম্পকে সে কিছুই জানে না বলে জিডির মাধ্যমে অভিযোগ প্রত্যাহার করেন। কিনু’ আশ্চর্যের বিষয় প্রত্যাহার করা অভিযোগ গুলো প্রায় ২ মাস পর স’ানীয় সাপ্তাহিক “সোনালী শীষ” পত্রিকায় গত- ৫ এপ্রিল একটি সংবাদ প্রকাশ করে। এতে জনমনে তীব্র ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদে ইউপি চেয়ারম্যান আঃ জব্বার সাংবাদিক সম্মেলনে ঘটনার প্রকৃত চিত্র প্রকাশনার মাধ্যমে তুলে ধরার জন্য সাংবাদিকদের প্রতি আহব্বান জানান, সম্মেলনে উপসি’ত ছিলেন তারাকান্দা উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি নজরম্নল ইসলাম চৌধুরী নয়ন, ডাঃ ইসমাইল হোসেন, ইউপি সচিব মাহতাব উদ্দিন প্রমূখ।

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষ আপডেটঃ ৮:৩০ অপরাহ্ণ | মে ০৮, ২০১৫