|

হালুয়াঘাটে পরিবহন ধর্মঘটের বিরুদ্ধে ব্যবসায়ী সংগঠনের বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ সভা

 

আনছারুল হক রাসেল ঃ ময়মনসিংহ জেলার হালুয়াঘাট উপজেলায় গত ৪ দিন যাবত চলমান পরিবহন ধর্মঘটের কারনে স’বির হয়ে পড়েছে জনজীবন। এতে ক্ষতিগ্রস’ হচ্ছে ব্যবসা বাণিজ্য। বহু প্রতিক্ষার পর কয়লা আমদানী শুরু হয়েছে হালুয়াঘাটের দুটি স’লবন্দর কড়ইতলী ও গোবরাকুড়ায়। কিন’ পরিবহন ধর্মঘটের কারনে ইট ভাটাগুলোতে কয়লা সরবরাহ করতে পাচ্ছেনা ব্যবসায়ীবৃন্দ। সেই সাথে বেকার হয়ে পড়েছে হাজার হাজার কয়লা শ্রমিক ও স্থানীয় মটর শ্রমিক। এদিকে ভরা মৌসুমে ধান, চাউল ও কাঁচামাল সহ বিভিন্ন পণ্য আটকে আছে চলমান ধর্মঘটের কারনে। এই অযৌক্তিক অন্যায় পরিবহন ধর্মঘটের বিরুদ্ধে ২৭ এপ্রিল কয়লা আমদানী ও রপ্তানীকারক গ্রুপের সহ-সভাপতি অধ্যক্ষ খোরশীদ আলম ভূইয়া, আহবায়ক হিসেবে মাইকিং করে মহিলা মার্কেট চত্বরে ঐক্যবদ্ধ হালুয়াঘাটবাসীর ব্যানারে এক বিশাল প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়। প্রতিবাদ সভায় ব্যবসায়ী, শ্রমিক, কৃষকসহ বিভিন্ন পেশাজীবির নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। উক্ত সভায় বক্তব্য রাখেন গোবরাকুড়া কয়লা আমদানী রপ্তকারক গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আলী আজগর, কড়ইতলী কোল এন্ড কোক ইম্পোটর্স এসোসিয়েশন এর সভাপতি ও ১ নং ভূবনকুড়া ইউপি চেয়ারম্যান এম সুরুজ মিয়া, ৪ নং সদর ইউপি চেয়ারম্যান সালেহ আহাম্মদ, উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোর্শেদ আনোয়ার খোকন প্রমুখ। সভায় বক্তারা অনতি বিলম্বে জেলা পরিবহন মালিক নেতৃবৃন্দ ও প্রশাসনের নিকট চলমান পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহারে দাবি জানান । পরে হালুয়াঘাট বাজারের প্রধান প্রধান সড়কগুলোতে বিক্ষোভ মিছিল প্রদর্শন করেন। বিক্ষোভ মিছিলে নেতৃত্ব দেন সাধারন সম্পাদক আলহাজ্ব আলী আজগর গোবরাকুড়া কয়লা আমদানী ও রপ্তানীকারক গ্রুপ। কড়ইতলী কোল এন্ড কোক এসোসিয়েশন এর সভাপতি আলহাজ্ব এম সুরুজ মিয়া ও সাধারন সম্পাদক সাবেক ইউপি সদস্য উসমান আলী ।

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ

সর্বশেষ আপডেটঃ ৭:০৭ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ২৭, ২০১৫